Jul 23, 2024
Political

Remove Suvendu Adhikari : "বিরোধী দলনেতা পদ থেকে সরান শুভেন্দুকে" কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে চিঠি বঙ্গ বিজেপির রাজ্য কমিটির একাংশের, শুভেন্দুকে চায় না RSS-ও

post-img

সুমন তরফদার। কলকাতা সারাদিন। 

২০২০ সালের ডিসেম্বরে অমিত সাহের পায়ে হাত দিয়ে প্রণাম করে মেদিনীপুরের জনসভায় বিজেপিতে যোগ দেওয়ার মঞ্চেই শুভেন্দু অধিকারী দাবি করেছিলেন একুশের বিধানসভা নির্বাচনে বাংলার অবিভক্ত মেদিনীপুরের ৩৫ লোকসভা আসনে পদ্মফুল ফোটাবেন। কিন্তু তা আর বাস্তবায়িত হয়নি। 

২০২২ সালের পৌরসভা নির্বাচনেও প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন কাঁথির সহ মেদিনীপুরের সমস্ত পুরসভায় বিজেপির বোর্ড গঠন হবে। পূরণ হয়নি সেই প্রতিশ্রুতিও। 

২০২৩ সালের ত্রিস্তর পঞ্চায়েত নির্বাচনে শুভেন্দু অধিকারী হুংকার ছেড়েছিলেন কেন্দ্র যদি সহায়তা করে তাহলে বাংলার গ্রামাঞ্চলে তৃণমূলকে ধুয়ে মুছে সাফ করে দেবেন।

শুভেন্দুর দাবি মেনে পঞ্চায়েত নির্বাচনের মুখে রাজ্যজুড়ে অসংখ্য তৃণমূল নেতাকে গ্রেফতার করতে সিবিআই এবং এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটের গোয়েন্দাদের কার্যত গ্রেহাউন্ডের মত পাঠিয়ে দিয়েছিলেন অমিত শাহ।

Exit Poll Failure : বাংলায় তৃনমূল একাই ৩৪, ২৯৫+ সাংসদ নিয়ে কেন্দ্রে ইন্ডিয়া জোটের সরকার, সম্ভাবনা স্পষ্ট হতেই ঢোঁক গিললেন শুভেন্দু95-Loksabha-Seats

রাজভবন থেকে বের করে রাজ্যপালকেও কার্যত পাড়ার পোস্ট অফিসের পিয়নের মত ছুটিয়েছেন শুভেন্দুর নির্দেশে বাংলার এক প্রান্ত থেকে আরেক প্রান্তে। বিচার ব্যবস্থার একাংশ তো শুভেন্দুকে কার্যত কোলে তুলে রেখেছিল বলে অভিযোগ করে তৃণমূল। 

#BreakingNews Sandeshkhali against Rekha Patra : "ধর্ষণের তো কোন ঘটনা ঘটেনি, অনেকের মতোই বৌদিও বিজেপির টাকার লোভে বিক্রি হয়ে গেল, আমরা রেখা বৌদির পাশে নেই" সাফ জানালেন রেখা পাত্রের পরিবারের সদস্যরা #LiveNewsUpdate #kolkatasaradin #WestBengal #sandeshkhali #SandeshKhaliNews #rekhapatra #BASIRHAT #LokSabhaElection2024

কিন্তু তারপরেও বাংলার গ্রাম পঞ্চায়েতের ১০ শতাংশ আসনেও বিজেপি ক্ষমতায় আসতে পারেনি। 


এরপরে শুভেন্দুকে কার্যত টার্গেট বেঁধে দেওয়া হয়েছিল বাংলায় এবারের লোকসভা নির্বাচনে কমপক্ষে ৩০ আসনে জয় পেতেই হবে। তার জন্য বীরভূমের অনুব্রত মণ্ডল থেকে শুরু করে রাজ্যের মন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক এবং তৃণমূলের এক ঝাঁক বিধায়ক নেতাকে গ্রেপ্তারের জন্য শুভেন্দু যখনই আবেদন করেছেন অমিত শাহের কাছে, তা পূরণ করতে ২৪ ঘন্টাও দেরি করেননি তিনি। 

এরপরেই বিজেপি কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে কার্যত না জানিয়ে সন্দেশখালিতে নিজের পরিকল্পনা মত অপারেশন শুরু করেন শুভেন্দু। বঙ্গ বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্তের দাবি রাজু সভাপতির সুকান্ত মজুমদার কেউ না জানিয়ে সন্দেশখালিতে জমি আন্দোলনের সঙ্গে মহিলাদের ধর্ষণের বিষয়টি জোড়ার পরিকল্পনা নাকি দিয়েছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব কে ভুল বুঝিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং অমিত শাহ কে দিয়ে সন্দেশখালিকে জাতীয় ইস্যু বানানোর জন্য যাবতীয় মিথ্যে তথ্য দেওয়ার জন্য নাকি দায়ী ছিলেন শুভেন্দু অধিকারী একা। 


তবে সন্দেশখালীর ভিডিওগুলি ভাইরাল হওয়ার পরে বিজেপি কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব বিষয়টি বুঝতে পারলেও শুভেন্দু অধিকারী তাদেরকে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন বাংলায় 30 আসন তো পরের কথা কমপক্ষে ৩৫ লোকসভা কেন্দ্রে নিরঙ্কুশ জয় পাবে বিজেপি। 

স্বাভাবিকভাবেই বাংলা থেকে ৩৫ আসন পাওয়ার আশায় ভোটের আগে শুভেন্দুর বিরুদ্ধে কোন কঠোর ব্যবস্থা নেননি নরেন্দ্র মোদী অথবা অমিত শাহ। মোদিকে পর্যন্ত শুভেন্দু এমন বুঝিয়েছিলেন যে মোদি বাংলায় শেষ প্রচারে এসেও দাবি করেন সবচেয়ে বেশি আসন আসবে বাংলা থেকেই। 


কিন্তু শুভেন্দু যে আগাগোড়া বিজেপি কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে মিথ্যে গল্প শুনিয়ে এসেছেন তা স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে ভোটের ফলাফলে। এবার যাবতীয় তথ্য তুলে ধরে বিজেপি সর্বভারতীয় সভাপতি এবং অমিত শাহের কাছে গতকাল রাতেই জরুরী ভিত্তিতে চিঠি পাঠিয়েছেন বাংলায় বিজেপি রাজ্য কমিটির একাধিক সদস্য। 


তাদের দাবি অবিলম্বে শুভেন্দু অধিকারী এবং অমিত মালব্যকে বাংলায় বিজেপির চালকের আসন থেকে সরাতে হবে।


বিরোধী দলনেতা পদ থেকেও অপসারণ করতে হবে শুভেন্দু অধিকারীকে। না হলে কয়েক মাসের মধ্যেই বাংলায় বিজেপিতে শুরু হবে

আড়াআড়ি ভাঙ্গন। 

Related Post

About Us

24 Hour Online Bengali & English News Portal Registered under Government of India. Head Office in Kokata.

Need Help? Connect Now