Apr 21, 2024
Technology News

Bajaj Pulsar 400CC : ভারতের বাজারে নতুন দুটি 400cc Pulsar বাইক আনল বাজাজ

post-img

শৌনক মন্ডল। কলকাতা সারাদিন।

পালসার (Pulsar), ভারতের রেসিং বাইকের বাজারে একটি অতি পরিচিত ব্র্যান্ড। এদেশের ওলি-গলিতে পালসারের বিভিন্ন মডেল ঘুরে বেড়াতে দেখা যায়। এবারে অত্যাধুনিক ফিচার্সের সঙ্গে এই রেঞ্জের জনপ্রিয় Pulsar NS200 ও Pulsar NS160-এর আপডেটেড ভার্সন নিয়ে হাজির হল বাজাজ অটো (Bajaj Auto)।

সময়ের সাথে তাল মিলিয়ে পালসার রেঞ্জ আপডেট না হওয়ার যে অভিযোগ ক্রেতদের ছিল, তার এবার নিষ্পত্তি ঘটল বলেই ধরে নেওয়া যায়। 2024 Pulsar NS200 ও Pulsar NS160 ব্লুটুথ, ডিজিটাল ইন্সট্রুমেন্ট ক্লাস্টার, এলইডি লাইট সহ গুচ্ছের ফিচার্স দ্বারা পরিপূর্ণ করে তোলা হয়েছে।

নতুন Pulsar NS200 ও Pulsar NS160-এর দাম প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ঘোষণা না হলেও, তা আগের তুলনায় সামান্য বাড়ানো হতে পারে বলেই অনুমান। এই বাইকে দুটি পালসার ব্র্যান্ডের অন্যতম জনপ্রিয় মডেল। তাই নয়া বৈশিষ্ট্য যোগ হওয়ার ফলে বিক্রিতে আরও জোয়ার আসবে বলেই আশাবাদী বাজাজ।

পালসারের এই দুই মডেলে আপডেট হিসেবে দেওয়া হয়েছে এলইডি হেডলাইট, এলইডি ডেটাইম রানিং ল্যাম্প। এতদিন পর্যন্ত মডেল দুটিতে অন্ধকার রাস্তায় পথ দেখাতে ব্যবহৃত হত হ্যালোজেন হেডল্যাম্প। আধুনিকতা দিক থেকে এবং প্রতিপক্ষদের সাথে লড়াইতে যা অনেকটাই পিছিয়ে।

Pulsar NS200 ও Pulsar NS160-তে উল্লেখযোগ্য আপডেট হিসেবে দেওয়া হয়েছে নতুন ডিজিটাল ইন্সট্রুমেন্ট ক্লাস্টার। এর সাথে রয়েছে ব্ল্যাকের স্পর্শ। বাঁ দিকে থাকা সুইচ গিয়ারের মাধ্যমে ক্লাস্টারটি নিয়ন্ত্রণ করা যাবে। ডিসপ্লেতে গিয়ার পজিশন ইন্ডিকেটর, মোবাইল নোটিফিকেশন অ্যালার্ট, ফুয়েল ইকোনমি, ডিস্ট্যান্স টু এম্পটি, অ্যাভারেজ ফুয়েল ইকোনমি এবং টাইম দেখা যাবে।

পালসারের এই নয়া ভার্সলে আবার অ্যানালগ ট্যাকোমিটারের পরিবর্তে দেওয়া হয়েছে একটি নতুন ডিজিটাল ইউনিট, যা উল্লম্বভাবে প্রতিস্থাপিত। ব্যবহারকারী চাইলে কল রিসিভ অথবা অ্যাক্সেপ্ট করতে পারবেন। বাজাজ রাইড কানেক্ট অ্যাপের মাধ্যমে বাইকের সাথে মোবাইল কানেক্ট করা যাবে। এছাড়া রয়েছে একটি ইউএসবি চার্জিং পোর্ট, যার মাধ্যমে ফোন চার্জ করা যাবে।

উপরিউক্ত পরিবর্তন ছাড়া Pulsar NS200 ও Pulsar NS160-এর কারিগরিতে কোন পরিবর্তন ঘটায়নি বাজাজ।

NS200 এর ইঞ্জিন থেকে ৯,৭৫০ আরপিএম গতিতে ২৪.১৬ বিএইচপি এবং ৮,০০০ আরপিএম গতিতে ১৮.৭৪ এনএম টর্ক পাওয়া যাবে। অন্যদিকে NS160 থেকে উত্‍পন্ন হবে ৯,০০০ আরপিএম গতিতে ১৬.৯৬ বিএইচপি এবং ৭,২৫০ আরপিএম গতিতে ১৪.৬ এনএম টর্ক।

Related Post

About Us

24 Hour Online Bengali & English News Portal Registered under Government of India. Head Office in Kokata.

Need Help? Connect Now